নার্সিং ভর্তি পরীক্ষা প্রস্তুতি ২০২১ - Nursing

নার্সিং ভর্তি পরীক্ষা প্রস্তুতি ২০২১

আবার সময় শেষ হয়ে গেলে অটোমেটিক প্রশ্ন ভেনিস হয়ে যাবে। পরীক্ষা চলাকালিন সময়ে একটি ঘড়িতে সময় উঠতে থাকবে, যেটা দেখে পরীক্ষার সময় কতক্ষণ থাকবে সেটা বুঝতে পারবেন। বিগত সালের নার্সিং ভর্তিপরীক্ষার প্রশ্নের আলোকে মোট ৫০টি mcq থাকবে (বাংলা, ইংরেজি, গণিত, সাধারণ জ্ঞান) বিস্তারিত নিচে পড়ুন।

নার্সিং ভর্তি ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের করোনাকালিন সময়ে ভর্তি পরীক্ষার প্রস্তুতির জন্য এই ওয়েবসাইটে নিয়মিতভাবে অনলাইন পরীক্ষা নেয়া হবে। একই সাথে নিয়মিতভাবে দিকনির্দেশনা প্রদান করা হবে।

অনলাইন পরীক্ষা শুরু করার পূর্বে আমরা দুইটি মেরিট পরীক্ষা নেব। এই দুটি পরিক্ষা অনুষ্ঠিত হবে নিচের সময় অনুযায়ী।
১ম পরীক্ষা ১৫/০৪/২১ ইং তারিখে দুপুর ৩ টায়
২য় পরীক্ষা ১৬/০৪/২১ ইং তারিখে দুপুর ৩ টায়

এরপরি শুরু হবে আমাদের নিয়মিত রুটিনভিত্তিক অনলাইন পরীক্ষা। উক্ত পরীক্ষাগুলোতে অনুপ্রেরণামূলক বিশেষ পুরষ্কারের ব্যাবস্থা থাকবে গ্রামীণফোন সিম অপারেটরের সহযোগিতায়।

মূল ভর্তি পরীক্ষা হবার আগ পর্যন্ত আমরা একটানা পরীক্ষা নেব। পরীক্ষাগুলোর জন্য নির্দিষ্ট সময় ফিক্সট করা থাকবে। সেই সময়ের মধ্যেই পরীক্ষা শেষ করতে হবে। 

প্রতিটি পরীক্ষার লিংক ২০ ঘন্টা আগেই সকলের ইমেইলে দেয়া হবে, একই সাথে বিভিন্ন ফেজবুক গ্রুপেও দেয়া হবে।

পরীক্ষাগুলোকে এতটাই ইনটারেস্টিং ও উপকারিভাবে নেয়ার ব্যাবস্থা করা হবে. যা যেকোনো শিক্ষার্থীর পড়ার প্রতি আগ্রহ স্বাভাবিকের তুলনায় অনেকগুণ বেড়ে যাবে।

তাই সকল নার্সিং ভর্তি ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণ আশা করছি। অনলাইন পরীক্ষায় কমপক্ষে ৫,০০০ থেকে ১০,০০০ জন শিক্ষার্থীর অংশগ্রহণ প্রত্যাশা করছি। কেননা প্রতিটি পরীক্ষা শেষে আমরা মেরিট লিস্ট দেব। আর এই মেরিট লিস্টে পরীক্ষার্থী সংখ্যা বেশি হলে প্রতিযোগিতাও হবে অনেক বেশি। ফলে অনেকের সাথে পরীক্ষা দিয়ে প্রতিযোগিতা করে নিজেকে অন্যদের থেকে ভালো করার মনোভাব সৃষ্টি হবে। ফলে পড়ালেখার প্রতি আসবে বাড়তি এনার্জি।

আমাদের আয়োজিত পরীক্ষাগুলোর মান এবং কার্যকারীতা অনেকগুণ বেশি। আমরা শুধু পরীক্ষাই নিইনা, এমনভাবে পরীক্ষা গুলো পরিচালনা করা হয়, যার ফলে বাস্তব পরীক্ষাগুলোর ন্যায় সকলের মধ্যে প্রতিযোগিতা সৃষ্টি হয়। ফলে পড়ালেখার প্রতি আকর্ষণ ও উৎসাহ অনেক বেড়ে যায়

পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে সকলের সুবিধার্থে  সকল ফেজবুক গ্রুপ এডমিনদের অনুরোধ জানাচ্ছি এক্সাম লিংক শেয়ার করলে approve করে, সাহায্য করবেন।

পরীক্ষা পরিচালোনার জন্য বিভিন্ন বিষয়ে সহযোগিতা, অনুপ্রেরণামূলক পুরষ্কার ও আর্থিকভাবে স্পনসর হয়ে স্বাহায্য করেছেন নিউরন পাবলিকেশন, গ্রামীণফোন অপারেটর, প্যারাসুট জুই নারিকেল তেল এবং বিডি ডিপ্লোমা অনলাইন শপ ।

আন্তরিকভাবে ধন্যবাদ জানাচ্ছি নিউরন পাবলিকেশনকে ( বিশেষ করে H Al Hasib sir, Writter Neuron Publication) অনলাইন এক্সামে স্পনসর  করবার জন্য। তাছাড়া বিডি ডিপ্লোমার এডমিন শামিম ইসলামকে আন্তরিকভাবে ধন্যবাদ গ্রামীণফোনের মতো এতো বড় একটি প্রতিষ্ঠানকে আমাদের সাধারণ একটি ওয়েবসাইট কর্তৃক আয়োজিত অনলাইন পরীক্ষায় স্পন্সর করার ব্যাবস্থা করার জন্য। তাছাড়া প্যারাসুট এর বিজ্ঞাপণ শাখার নিকটেও কৃতজ্ঞ আমাদের স্পন্সর করবার প্রস্তাব রাখার জন্য।


পরীক্ষার প্রশ্ন দেখতে পাবেন ঠিক দুপুর ৩ টায়। পরীক্ষা মোট ৫০ নম্বরের নেয়া হবে। এজন্য মোট ৫০ টি mcq থাকবে। 

    1. যারা wifi ইন্টারনেট দিয়ে পরীক্ষা দেবেন এবং যারা 4G নেটওয়ার্কের আওতায় থাকবেন তারা পরীক্ষার সময় পাবেন ৩০ মিনিট।
    2. যারা 3G নেটওয়ার্কের আওতায় থাকবেন তারা পরীক্ষার সময় পাবেন ৩২ মিনিট।
    3. যারা 2G নেটওয়ার্কের আওতায় থাকবেন তারা পরীক্ষার সময় পাবেন ৪০ মিনিট। ওয়েবসারটে সেট করা ঘড়ি অটোমেটিক পরীক্ষা করে দেখবে আপনি কোন নেটওয়ার্কে আছেন, সেই হিসাবে আপনি পরীক্ষার জন্য নির্দিষ্ট সময় পাবেন।
এব্যাপারে কারো আরো কোনো প্রশ্ন থাকলে কমেন্টে জানাতে পারেন। অথবা হাতের ডান সাইডে দেখুন একটি ম্যাসেন্জার আইকন আছে, সেখানে ক্লিক করে জানাতে পারেন অথবা সরাসরি কল করতে পারেন ০১৯০৪-৩২৮২০৩

Powered by Blogger.